হাটহাজারীতে ট্রাফিক পুলিশের বিশেষ অভিযানে ১৩৫ টি মামলা 

  • ৯-Aug-২০১৮ ০৬:০০ অপরাহ্ন
Ads

হাটহাজারীতে ট্রাফিক সপ্তাহ উপলক্ষে পঞ্চম দিনের মতো বাস স্ট্যান্ডের জিরো পয়েন্টে বিশেষ অভিযান পরিচালনা করেছে ট্রাফিক পুলিশ। বৃহস্পতিবার ০৯ অগাস্ট সকাল সাড়ে দশটা থেকে শুরু করে বিকেল ৫টা পর্যন্ত হাটহাজারী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবদুল্লা আল মাসুমে নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালনা করা হয়।

অভিযানে পুলিশের সাথে কলেজ পড়ুয়া রোভার স্কাউট নেতৃবৃন্দরাও অংশগ্রহণ করেন। এ সময় চলাচলকারী বিভিন্ন ধরনের যানবাহনের কাগজপত্র ও ফিটনেস পরীক্ষা করা হয়। এবং যাদের গাড়ীর কাগজপত্র ও ড্রাইভিং লাইসেন্স সঠিক পাওয়া গেছে তাদের ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান হাটহাজারী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবদুল্লাহ আল মাসুম।

ট্রাফিক আইন অমান্য করে সড়কে যান চলাচল করায় উক্ত অভিযানে বিভিন্ন যানবাহন ও চালককে উল্টোপথে গাড়ী চালানো,হাইড্রোলিক হর্ণ ব্যবহার, হুটার ও বিকন লাইট ব্যবহার,মাইক্রোবাসে কালো গ্লাস ব্যবহার সহ বিভিন্ন অপরাধে ট্রাফিক সপ্তাহ উপলক্ষে চলা অভিযানের পঞ্চম দিনে প্রায় ১৩৫টি মামলা দেয়া ও ১৮ টি যানবাহন আটক করা হয়। সকাল থেকে চলা এ অভিযানে উত্তর জেলা ও হাটহাজারী ট্রাফিক জোনের অফিসারবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে,সড়ক দুর্ঘটনা রোধে চালক,যাত্রী,পথচারীদের সচেতন হতে বিভিন্ন পরামর্শ দিচ্ছেন পুলিশ। ট্রাফিক পুলিশদের দাবি আমরা সর্বাত্মক চেষ্টা করি সড়কের যানযট নিরসন করতে। কিছু অনবিজ্ঞ চালক সড়কের নিয়ম-নীতি না জানা বা না মানার কারনে দেশে দুর্ঘটনার হার বেড়েছে।

এদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন গাড়ী চালক জানান, বিআরটিসি কতৃপক্ষ চালকদের ড্রাইভিং লাইসেন্স বন্ধ করে দিয়েছে। যার ফলে বিগত কয়েক বছর আমরা গাড়ী চালালেও কোন সঠিক অভিজ্ঞতা পায়নি এবং লাইসেন্সও তৈরী করতে পারিনি। বিআরটিসিতে দালাল ছাড়া কোনো কাজই হয়না। আমরা সরকারী নিয়ম নীতি অনুযায়ী সড়কে গাড়ী চালাতে এবং ড্রাইভিং লাইসেন্স পেতে চায়।

ট্রাফিক পরিদর্শক মোস্তাফিজুর রহমান(পিপিএম) সাংবাদিকদের জানান, যেসব যানবাহনের চালকদের ড্রাইভিং লাইসেন্স,গাড়ির ফিটনেস ও বৈধ কাগজপত্র দেখাতে পারবেন না তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে সামনেও নেয়া হবে।

হাটহাজারী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবদুল্লাহ আল মাসুম জানান, ট্রাফিক সপ্তাহ উপলক্ষে সারা দেশের ন্যায় হাটহাজারীতেও ৫ম দিনের মতো সকাল থেকে পুলিশের বিশেষ অভিযান চলছে। আজও যারা প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দেখাতে পারছেন তাদেরকে পুলিশের পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হচ্ছে। তিনি এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানান।

Ads
Ads